ধর্ষনকারীদের বিরুদ্ধে মিছিল করায় শিক্ষার্থীকে ছাত্রলীগের মারধর

প্রকাশিত: ১:১৯ পূর্বাহ্ণ, অক্টোবর ৮, ২০২০

ধর্ষনকারীদের বিরুদ্ধে মিছিল করায় শিক্ষার্থীকে ছাত্রলীগের মারধর

 

মৌলভীবাজার প্রতিনিধি::

মৌলভীবাজারের জুড়ী উপজেলায় এক সাধারণ শিক্ষার্থীকে চা খাওয়ার কথা বলে ডেকে নিয়ে মারধরের অভিযোগ উঠেছে উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের বিরোদ্ধে।

মঙ্গলবার (৬ অক্টোবর) বিকেল ৩ টার দিকে উপজেলার নাইট চৌমূহনা এলাকায় এই ঘটনাটি ঘটে।

 

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, সম্প্রতি এমসি কলেজে গণধর্ষণসহ সারাদেশের ধর্ষনকারীদের গ্রেফতার ও উপযুক্ত শাস্তির দাবিতে গতকাল ৫ অক্টোবর জুড়ী বাজারে এক বিক্ষোভ মিছিল করে সাধারণ শিক্ষার্থীরা। এই রেশ ধরে জুড়ী উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক সহ বেশ কয়েকজন নেতাকর্মী মিলে শাহাব উদ্দিন (২৭) নামের ঐ শিক্ষার্থীকে মারধর করে। পরে গুরুতর আহত অবস্থায় স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে তাৎক্ষণিক হাসপাতালে নিয়ে প্রাথমিক চিকিৎসা দেন।

নির্যাতনের শিকার শিক্ষার্থী শাহাব উদ্দিন বলেন, গতকাল জুড়ীতে দেশব্যাপী ধর্ষনের প্রতিবাদে একটি বিক্ষোভ মিছিল হয়, সেটিতে আমিও ছিলাম। এই টার্গেট নিয়ে দুপুরে জুড়ী বাজারে উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি সাহাব উদ্দিন সাবেল ও সাধারণ ইকবাল ভূঁইয়া আমার মোটরসাইকেলে উঠে বলে আমার সাথে কথা আছে তাদের এবং চা খাবেন। এই বলে নাইট চৌমুহনায় নিয়ে যায় এবং আগে থেকে সেখানে ওৎ পেতে থাকা ১৫/ ২০ জন নেতাকর্মী হঠাৎ করে সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের নির্দেশে আমার উপর অতর্কিত হামলা করে। পরে স্থানীয়রা এখান থেকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যায়।

তিনি বলেন, একপর্যায়ে পুলিশ এসে উপস্থিত হয় ঘটনাস্থলে। পরে আমার মোটরসাইকেলটি থানায় নিয়ে যায়।

এবিষয়ে উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি সাহাব উদ্দিন সাবেল বিষয়টি অস্বীকার করে বলেন, এরকম কোনো ঘটনা ঘটেনি।

জুড়ী থানার অফিসার ইনচার্জ সঞ্জয় চক্রবর্তী বলেন, আমরা এরকম কোনো অভিযোগ পাইনি। অভিযোগ আসলে আমরা ব্যবস্থা নেবো। বিকেলে চৌমুহনায় একটি মোটরসাইকেল পেয়েছি। মালিকানা যাচাইয়ের জন্য সাইকেলটি থানায় নিয়ে আসা হয়েছে।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ